আসছে শীত, সখীপুরের লেপ-তোষক তৈরিতে ব্যস্ত কারিগররা 

আসছে শীত, সখীপুরের লেপ-তোষক তৈরিতে ব্যস্ত কারিগররা 

এস এম জাকির হোসেন:
আসছে শীত ॥ সখীপুরের লেপ-তোষক তৈরিতে ব্যস্ত কারিগররা। আগাম শীত উপলক্ষে লেপ-তোষক তৈরিতে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছে লেপ-তোষক কারিগর ও ব্যবসায়ীরা। দিনে গরম, রাতে ঠান্ডা আর সাতসকালে ঘাস, লতাপাতার ওপর জমে থাকা শিশির বিন্দু জানান দেয় ‘শীত এসে গেছে। তৈরী হও শীতবস্ত্র নিয়ে শীত মোকাবেলায়’। জানা গেছে, সখীপুর উপজেলায় আগাম শীত জেঁকে বসার কারণে লেপ-তোষক বিক্রি বেড়ে যাওয়ায় খোশমেজাজে দিন কাটাচ্ছে কারিগর ও লেপ-তোষক ব্যবসায়ীরা।  মধ্যবিত্ত-নিম্নবিত্ত মানুষের কম্বল খোঁজাখুঁজি শুরু না হলেও শীত মোকাবেলায় বিভিন্ন শ্রেণীর মানুষের লেপ-তোষকের দোকানগুলোতে ভীড় করতে শুরু করেছেন। গত কয়েকদিন ধরে উপজেলার বিভিন্নস্থানে ঘুরে দেখা গেছে, উপজেলা সদর. কীর্ত্তন খোলা, কচুয়া বাজার, বড়চওনা বাজার, পাথার চৌরাস্তা , বাঘবেড় বাজার, , নলুয়া বাজার, বেতুয়া বাজার, লেপ-তোষক কারিগরদের ব্যস্ততা দিন দিন বেড়েই চলছে। দিনরাত সমানে ব্যস্ত অর্ডার নেয়া, আর তৈরি করা লেপ-তোষক সরবরাহ করা নিয়ে। বর্তমানে একটি লেপ বানাতে খরচ নেয়া হচ্ছে ৯শ’ থেকে ১৩শ’ টাকা পর্যন্ত।  কারিগররা জানান, কাপড়, সুতা এবং তুলার দাম বেশি হওয়ায় খরচ আগের তুলনায় এখন অনেক বেশি। এক লেপ-তোষক ব্যবসায়ী জানান, গতবছর ৯শ’ টাকায় যে লেপ বানানো হয়েছে এবছর সেটা ১৩শ’ টাকা খরচ পড়ছে। একই কথা জানান লেপ-তোষক কারিগর বাবুল বেপারী। তিনি জানান, প্রকারভেদে গত বছরের চেয়ে এবছর ১শ’ থেকে ৩শ’ টাকা খরচ বেশি হচ্ছে একটি লেপ বানাতে। সখীপুর সদরের এক কারিগর জানান, গতবছর ৯শ’ টাকা দিয়ে একটি লেপ তৈরি করেছি, কিন্তু এবার সেই লেপ বানাতে খরচ হয়েছে ১৩শ’ টাকা। লেপ-তোষক ব্যবসায়ীরা জানান, এবছর জিনিসপত্রের দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় স্বাভাবিকভাবেই লেপ-তোষক তৈরিতে খরচ বেড়ে গেছে।

সংবাদটি শেয়ার করতে এখানে ক্লিক করুন




All rights reserved © Prothom Kantho
Design BY Code For Host, Inc