জেল থেকে বেরিয়ে টাকার জন্য বাবাকে পিটিয়ে হত্যা

জেল থেকে বেরিয়ে টাকার জন্য বাবাকে পিটিয়ে হত্যা

Spread the love
নিজস্ব প্রতিবেদক : টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে নুরুল হক (৭০) নামে এক বৃদ্ধকে পিটিয়ে ও শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগ উঠেছে মাদকাসক্ত ছেলের বিরুদ্ধে। মাদকাসক্ত ওই ছেলের নাম লাবলু। তিনি তার স্ত্রী রোকেয়ার সহযোগিতায় বাবাকে পিটিয়ে ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করেন বলে অভিযোগ উঠেছে।
বুধবার (০৪ মার্চ) মির্জাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সায়েদুর রহমান জানান, মরহেদ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। রাতেই রোকেয়াকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পাওয়ার পর প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে। ছেলে লাভলুকে গ্রেফতারে পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে।
এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার রাতে (০৩ মার্চ) উপজেলার ভাতগ্রাম ইউনিয়নের বাগজান গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে রোকেয়াকে রাতেই উপজেলার জামুর্কী ইউনিয়নের পাকুল্যা গ্রাম থেকে গ্রেফতার করেছে। তিনি পাকুল্যা গ্রামের রফিক মিয়ার মেয়ে।
জানা গেছে, মঙ্গলবার বিকেলে মাদকাসক্ত ছেলে লাভলু (৩০) জেল থেকে জামিনে বের হন। লাভলু তার স্ত্রীকে নিয়ে বাড়িতে গিয়ে জামিনে বের হতে তার ২০ হাজার টাকা খরচ হয়েছে দাবি করে বৃদ্ধ বাবাকে ওই টাকা দিতে চাপ দেন।
বাবা টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে লাভলু ও তার স্ত্রীর সঙ্গে বাকবিতণ্ডার শুরু হয়। একপর্যায়ে স্ত্রীর সহযোগিতায় বাবাকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে এবং শ্বাসরোধে হত্যার পর পালিয়ে যান লাভলু।
মির্জাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সায়েদুর রহমান জানান, রাতেই অভিযান চালিয়ে রোকেয়াকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
ভাতগ্রাম ইউপি চেয়ারম্যান মো. আজহারুল ইসলাম বলেন, মাদকাসক্ত ছেলে বৃদ্ধ বাবার কাছে ২০ হাজার টাকা দাবি করেন। বাবা টাকা দিতে না পারায় স্ত্রীর সহযোগিতায় বাবাকে হত্যা করেন তিনি। এ ঘটনার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান ইউপি চেয়ারম্যান।

সংবাদটি শেয়ার করতে এখানে ক্লিক করুন




All rights reserved © Prothom Kantho
Design BY Code For Host, Inc