করোনায় মৃত্যুহারে ইতালির পরেই বাংলাদেশ

করোনায় মৃত্যুহারে ইতালির পরেই বাংলাদেশ

Spread the love

ডেস্ক রিপোর্ট, প্রথমকণ্ঠ :

বিশ্বব্যাপী মহামারি আকার নেওয়া করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে ২০৫টি দেশ ও অঞ্চলে। একই সঙ্গে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ডায়মন্ড প্রিন্সেস ও এমএস জ্যান্দাম নামে দুটি প্রমোদতরীর যাত্রীরা।

প্রাণঘাতী এই ভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছে ১১ লাখ ১৭ হাজার ৮৬০ জন আর মৃত্যুবরণ করেছে ৫৯ হাজার ২০৩ জন।

এই হিসাবে বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসে মৃত্যুর হার ৫.২৯ শতাংশ। সফটওয়্যার সল্যুশন কোম্পানি ডারাক্সের পরিসংখ্যানভিত্তিক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটার এই তথ্য প্রকাশ করেছে।

করোনাভাইরাস আক্রান্ত ২০৫ দেশের মধ্যে রয়েছে বাংলাদেশও। আক্রান্তের দিক থেকে ওয়ার্ল্ডোমিটারে বাংলাদেশের অবস্থান নিচের দিকে থাকলেও মৃত্যুর হার বিবেচনায় বাংলাদেশের অবস্থান দ্বিতীয়। মৃত্যু হারে প্রথম অবস্থানে রয়েছে ইতালি। আর তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে স্পেন।

আজ করোনা নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত অনলাইন প্রেস ব্রিফিং থেকে জানা গেছে, বাংলাদেশে করোনায় এ পর্যন্ত মৃত্যুবরণ করেছে ৮ জন।

আক্রান্ত হয়েছে ৭০ জন। এর মানে দেশে প্রতি ১০০ জন করোনা আক্রান্ত রোগীদের মধ্যে প্রায় সাড়ে ১১ জন মারা যাচ্ছেন!

এই হিসেবে বাংলাদেশে মৃত্যুর হার ১১.৪৩ শতাংশ যেখানে ভাইরাসটির উৎপত্তিস্থল চীনে মৃত্যুর হার ৪.০৪%। মৃত্যুর হারে বাংলাদেশ থেকে এগিয়ে থাকা একমাত্র দেশ ইতালিতে। দেশটিতে এই হার ১২.২৫ শতাংশ।

ইতালির পর মৃত্যুপুরি হিসেবে বিবেচিত স্পেনেও এই হার বাংলাদেশের চেয়ে কম। স্পেনে মৃত্যুর হার ৯.৩৯ শতাংশ। আক্রান্তের দিক থেকে প্রথম অবস্থানে থাকা যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যুহার মাত্র ২.৬৭ শতাংশ।

এশিয়ার দুই দেশ দক্ষিণ কোরিয়া এবং মালয়েশিয়াতেও মৃত্যুহার যৎসামান্য, যথাক্রমে ১.৭৪ % ও ১.৫৯%। প্রতিবেশী ভারতে (২.৭৯%) তাদের থেকে কিছুটা বেশি হলেও পাকিস্তানে (১.৪৮%) তুলনামূলকভাবে অনেক কম। অন্যদিকে দক্ষিণ এশিয়ার আরেক দেশ শ্রীলঙ্কায় মৃত্যুহার ৩.১৪%।

মহামারি করোনাভাইরাসের এখনও কোনো প্রতিষেধক আবিষ্কৃত না হওয়ায় বিশেষজ্ঞদের দেওয়া পরামর্শই এই প্রাণঘাতী ভাইরাস থেকে রক্ষা পাওয়ার একমাত্র উপায়।

এক্ষেত্রে নাগরিকদের সচেতনতা একান্ত জরুরি। একইসঙ্গে সামাজিক দূরত্ব, লকডাউন ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দেওয়া নির্দেশাবলী মেনে চলা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এছাড়াও কোয়ারেন্টিন ও আইসোলেশনের ওপর সরকারের উচিত আরও গুরুত্বারোপ করা।

প্রথমকণ্ঠ / ডেস্ক

সংবাদটি শেয়ার করতে এখানে ক্লিক করুন




All rights reserved © Prothom Kantho
Design BY Code For Host, Inc